জেরুসালেম ইসরায়েলের রাজধানী : ট্রাম্প

আন্তর্জাতিক

হোয়াইট হাউসে এক ভাষণে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প বিতর্কিত জেরুসালেম শহরকে ইসরায়েলের রাজধানী হিসাবে স্বীকৃতি দিয়েছেন।

এই ঐতিহাসিক সিদ্ধান্ত কয়েক দশকের আমেরিকান নীতিকে বদলে দিয়েছে।

প্রেসিডেন্ট আরও ঘোষণা করেছেন যে আমেরিকান দূতাবাস তেল আভিভ থেকে জেরুসালেমে সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হবে।

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প বলেছেন এই সিদ্ধান্তের মানে এই নয় যে আমেরিকা মধ্য প্রাচ্যে স্থায়ী শান্তি প্রতিষ্ঠার দৃঢ় অঙ্গীকার থেকে সরে আসছে।

তিনি বলেছেন দীর্ঘ দিনের ইসরায়েল ফিলিস্তিনি সংঘাতের অবসান ঘটাতে আমেরিকা দুই রাষ্ট্র সমাধানকে সমর্থন জানাতে প্রস্তুত যদি উভয় পক্ষ সেটাই চায়।

জেরুসালেম, ইসরায়েলি-ফিলিস্তিনি সঙ্কটের কেন্দ্রে যে শহর৷ — GETTY IMAGES

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পের ভাষণের আগে আমেরিকান কর্মকর্তারা বলেছিলেন মি: ট্রাম্প শুধু এই বাস্তবতাকে মেনে নিয়েছেন যে জেরুসালেম ইসরায়েলের রাজধানী হিসাবে বেশি কার্যকর। যদিও ফিলিস্তিনিরা জেরুসালেমকে তাদেরও রাজধানী হিসাবে দাবি করে।

প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প বলেছেন মধ্য প্রাচ্য শান্তি প্রক্রিয়াকে এগিয়ে নিয়ে যাবার লক্ষ্যে এই পদক্ষেপ ছিল “দীর্ঘ প্রতীক্ষিত।”

এই সিদ্ধান্ত ঘোষণার আগে ফিলিস্তিনি প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাসের একজন মুখপাত্র সাবধান করে দেন যে এই সিদ্ধান্ত এলাকার জন্য “বিপজ্জনক পরিণতি ডেকে আনবে।”

Tagged

৩ thoughts on “জেরুসালেম ইসরায়েলের রাজধানী : ট্রাম্প

  1. ট্রাম্প কখনো ভালো মানুষ ছিল না, তার কাছ থেকে ভালো কোন সিদ্ধান্ত আশা করাও ঠিক নয়৷ অন্য ভাবে বলতে গেলে, আমেরিকার অনেক যুগের লুকায়িত চরিত্র ট্রাম্প খোলাশা করে দিয়েছে৷

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *