প্রশ্নপত্র ফাঁস ঠেকাতে ২৪ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত যে সময়ে সারাদেশে ইন্টারনেট বন্ধ থাকবে

প্রযুক্তি

প্রশ্নপত্র ফাঁস ঠেকাতে ধীর গতিতে ইন্টারনেট চালানোর সিদ্ধান্ত পরীক্ষামূলকভাবে বাস্তবায়ন করা হয়েছে। রবিবার (১১ ফেব্রুয়ারি) রাত ১০টা থেকে সাড়ে ১০টা পর্যন্ত ইন্টারনেট সেবার গতি ধীর ছিল। আইএসপি ও মোবাইল অপারেটরগুলোতে ২৫ কেবিপিএস (কিলোবিট পার সেকেন্ড) ব্যান্ডউইথ সরবরাহর কারণে কার্যত বন্ধই ছিল ইন্টারনেট। এসময় কোনও ওয়েবসাইটে ঢোকা যায়নি। কিছু সার্চ দিলেও ওয়েবপেজগুলো কেবল ‘লোডিং’ দেখাচ্ছিল।

টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন বিটিআরসির চেয়ারম্যান ড. শাহজাহান মাহমুদ বলেন, ‘আমরা সবসময় সরকারি সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন করি। ইন্টারনেটের গতি ধীর করার সিদ্ধান্ত সরকারের। ভালো কিছুর জন্যই এটা করা হয়েছে।’
ইন্টারনেট ব্যবহারকারীরা জানিয়েছেন, রবিবার রাত ১০টার পর আধাঘণ্টার জন্য তারা ইন্টারনেট ব্রাউজ করতে পারেননি। এসময় গণমাধ্যমকর্মীরাও ইন্টারনেট ব্যবহার করতে পারেননি।

দৈনিক পত্রিকার অনলাইন বিভাগের একজন কর্মী বলেন, ‘রাত ১০টার পর থেকে ইন্টারনেট সংযোগ ছিল না। আমরা এই সময়ে কোনও ওয়েবসাইটে ঢুকতে পারিনি এবং ইন্টারনেটের মাধ্যমে কোনও ধরনের যোগাযোগ করতে পারিনি।’
ইন্টারনেট সেবাদাতা প্রতিষ্ঠানগুলোর সংগঠন আইএসপিএবি’র সভাপতি আমিনুল হাকিম বলেন, ‘রাতে পরীক্ষামূলকভাবে ইন্টারনেট সেবার গতি ধীর করা হয়েছিল। রবিবার রাত হওয়ায় খুব বেশি ক্ষতি হয়নি। দিনের বেলা হলে ক্ষতির মাত্রা বেশি হতো।’ এই সময়ে ব্যক্তিগত যোগাযোগ বন্ধ থাকা ছাড়া বিশেষ ক্ষতি হয়নি বলে মনে করছেন তিনি।

দেখে নিন যখন ইন্টারনেট সংযোগ বন্ধ থাকবে।

11/02/2018 (22:00 to 22:30 Hour) (For Test and Trial)

12/02/2018 (08:00 to 10:30 Hour)

13/02/2018 (08:00 to 10:30 Hour)

15/02/2018 (08:00 to 10:30 Hour)

17/02/2018 (08:00 to 10:30 Hour)

18/02/2018 (08:00 to 10:30 Hour & 12:00 to 14:30 Hour)

19/02/2018 (08:00 to 10:30 Hour)

20/02/2018 (08:00 to 10:30 Hour)

22/02/2018 (08:00 to 10:30 Hour)

24/02/2018 (08:00 to 10:30 Hour)

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *